চেহারা সুরত

৪ অক্টোবর ২০১৬

-------------------------

নায়িকা মাথিনের কথা আমি জানতে পারি Imrul Hassan মারফতে; মেঘের অনেক রঙ সিনেমার নায়িকা, ত্রিপুরা জাতির লোক মনে হয়। বাংলাদেশের আদিবাসীদের মাঝে থেকে আর কেউ ঢালিউডে নায়িকা হইছেন বলে মনে হয় না, অল্টারনেটিভ হেলদি (সুস্থ) সিনেমাতেও আছেন নাকি কেউ? নায়কও নাই। ঘটনা কি?

বাংলাদেশে কালা কালা মানুষ বেশি হইলেও নায়ক-নায়িকারা র্ফসা; কালকে Muradul Islam’র লগে আলাপ হইতেছিল গায়ের রঙের ব্যাপারে; কইতেছিলাম, বাংলাদেশের সমাজে সুন্দর রঙ র্ফসা (গৌর) মানে হোয়াইট/সাদা না, এইটারে কয় দুধে আলতা; আমি হিসাব কইরা দেখলাম এইটা সেন্ট্রাল এশিয়ান গায়ের রঙ মোটামুটি; মনে হইলো, ঐ দিক থেকে আর্যরা আইছিলেন বলে ধরা হয়; ভারতে আইসা আর্যরা একটু হয়তো কালচে হইছে, আর ইউরোপে যাইয়া সাদা হইছে–শীতের লগে রিলেশন আছে বইলা ভাবা হয় মে বি–স্ক্যান্ডিনেভিয়ান/রাশিয়ানরা সবচে সাদা মে বি।
আলাপটা নেসেসারিলি রেসিস্ট, বাট উপায় নাই, দেশের নায়ক-নায়িকা বাছাই খুবই রেসিস্ট ঘটনা, সমাজের বিউটির আইডিয়াও! এখন খেয়াল করেন, দেশের আদিবাসীরা গড়ে বাঙালিদের চাইতে র্ফসা, তবু নায়িকা-নায়ক নাই; কেন? এইখানেই আর্য ব্যাপারটা ভাবতে হয়; আর্যেরা গড়ে দেশের আদিবাসীদের তুলনায় লম্বা হইবেন, নাক খাড়া হবে বইলা ধরা হয়; সো, দেশের নায়ক-নায়িকাদের এইগুলি থাকতে হবে, ‘মঙ্গোলয়েড’ র্ফসায় কাম হবে না! কালা তো হইতেই পারবে না; তবে, ভিলেনরা কালা হইতে পারে; ইন ফ্যাক্ট, কালা বইলাই ভিলেন হিসাবে ভাল হইতে পারে (ডিপজল)! এইটাও সেই আর্য ডিসকোর্স; রাক্ষস বা অসুরেরা কালাই হবার কথা! পাপের ফল চণ্ডালরা একটু র্ফসা হইতে পারে আর্যদের রেপের কারণে, বাট পাপের ফল বইলা একটু ডিফর্মড মে বি!
ঢাকায় কালা নায়ক-নায়িকা হইতে পারা আরো অসম্ভব কইরা রাখে কোলকাতা; কোলকাতা আর্য মন-দেহের দখলে। ঢালিউডে কোলকাতা থেকে কনসাসলি কিছুটা বাইরাইছেন সোহেল রানা; উনি ততো কালা না, বাট সেইটা তো ওনার দোষ না! উনি ডিনায়্যালের আওয়াজটা দিছেন মোচ রাইখা :)! কোলকাতার মেল স্মার্টনেস তখন মোচ রাখে না, তখনকার হিট সৌমিত্র, একটু আগের উত্তমের কোন ক্যারেক্টারের মোচ থাকতে পারে, বাট উত্তম বা সৌমিত্র কইলেই মোচ কামাইয়া রাখা লোক ভাসে! সোহেল রানা তার মোচ দিয়া কড়া স্টেটমেন্ট দিতে থাকেন তাই! আর আদিবাসীরা? কোলকাতার কাছে আদিবাসীরা তো অসুর, চণ্ডাল; বড়জোর রঠার ক্যামেলিয়ার সাঁওতাল মাইয়া–আনকালচার্ড, নেচারের দুশমন, গাছে ফুলের শোভা বোঝে না, তুইলা কানে দিয়া রাখে!
সোহেল রানার মোচ বাংলাদেশের সিনেমার ডেমোক্রেটিক হইয়া ওঠার নিশানা, কলোনিয়াল গোলামী’র ডিনায়্যাল–ব্যাটাগিরির/আসল মর্দামি’র সিম্বল হবার লগে লগে…

————–


২২ আগস্ট ২০১৭

সালাউদ্দিনের রূপবান হইলো সিনেমায় পয়লা ঢাকাই স্টেটমেন্ট, দেশি দস্তখত। তার আগে ফতেহ লোহানীর ‘আশিয়া’ হইতেছে কোলকাতাই নজরে পূবের বাংলা। কোলকাতাই ‘অচেনা’ আর উর্দু ঘুইরা রূপবানের সাহসে জহির রায়হান ‘বেহুলা’ বানাইছেন।

ঢালিউড নিজের সিগনেচার দিতে শুরু করলো কোলকাতারে ডিনাই কইরা। এই ব্যাপারে দিলীপ বিশ্বাস আর কাজী জহিরের নামও কইতে হয়। কিন্তু ১৯৭৬ সালে সোহেল রানার ‘গুণাহগার’-এর আগে ভাষায় কোলকাতাই থাকলেন সবাই। মাঝে রংবাজে রাজ্জাকের ফ্যাশনে (ছবির নামেও) ঢাকাই হইলেন, তার আগের রাজ্জাক মনে হয় পুরাই কোলকাতাই মাল।
রাজ্জাকের মোচ আর লকেটের ফ্যাশন দিয়া রংবাজ উত্তম-সৌমিত্রের ভুত খেদাইছে। সৌমিত্ররা সন্নাসী হইলে টইলে আউলা হইতে মোচ-দাড়ি-তাবিজ লইতেন বটে! ছবি দেখেন।
যারা দোনোমোনো করতেছেন তারা রাজ্জাকের ছবক লইতে পারেন, ঢাকারে মনে লইতে শিখতে পারেন, কলিকাতা ছাইড়া।

————

২৮ মার্চ ২০১৮

একজন আতেলের ফ্যাশনে কি কি ধরেন বা ইনক্লুড করেন আপনে?

কাপড়চোপড়-জুতা-চুল-দাড়ি-মোচ, ভিজ্যুয়াল তো ধরেন আছেই, আর কি কি?
টার্মিনোলজি, ভাষা-ডায়ালেক্ট-টান? ভোকাবুলারির ক্লাস প্রেফারেন্স, মানে অল্টারনেটিভ শব্দ থাকলে কোন ক্লাসের, সমাজের কোন সেকশনের শব্দ লইলেন? ভঙ্গিমা, ভাষার বা জেশ্চার? কথার পেস? লিসেনিং টু আদার্স? রেসপন্ডিং এটিচ্যুড?
অন্যের ভক্তি বা সমীহ এচিভ করার রাস্তা কেমন? কতটা চুপ থাকতে হবে, কতটা মুচকি হাসতে হবে, কতটা সবর বা ধৈর্য দেখাইতে হয়? টেম্পার কন্ট্রোল?
একজন আতেলকে অন্যরা কতটা পাত্তা দেবে তাতে তার চিন্তা আর ফ্যাশন, কোনটা কতটা রোল প্লে করে? মানে, ফ্যাশনও তো চিন্তাই, কিন্তু যদি জিগান দুইটা পোশ্ন (কি কইলো, আর কেমনে কইলো?), এ দুই পোশ্নের জবাবে মনে হয় চিন্তা আর ফ্যাশন আবছাভাবে যুদা করা যাইতেছে…
একজন আতেলের এজেন্ডা যদি হয়, ফ্যাশনকে ছাপাইয়া/হারাইয়া চিন্তারে জেতানো, তাইলে নিজের চিন্তার পাত্তা বাড়াইতে ফ্যাশন ইউজ করাটা কি একটু ট্রাজিক? একজন আতেলের নিজেরে কতটা চ্যালেঞ্জ করা উচিত? ভক্তির গ্রামার বা কানুন জানার পরেও সে যদি সমীহ জাগানিয়া ভঙ্গিমা/ফ্যাশনকে ডিনাই কইরা সমীহ করার মতো চিন্তা ডেলিভারি দিতে থাকে এবং ফ্যাশন মারফতে সমীহ যে আরো বাড়াইতে পারতো, সেইটা হারাবার রিস্ক লয়, সেই আতেল কি আলটিমেটলি বেকুব?
মানে, যেই আতেল তারে ভক্তি করাটা কঠিন কইরা রাখে, সে কি বেকুব?